বছরের প্রথম দিনই চার কোটি ৩০ লাখ শিক্ষার্থীর হাতে তুলে দেয়া হবে ৩৫ কোটি বই

বছরের প্রথম দিনই চার কোটি ৩০ লাখ শিক্ষার্থীর হাতে তুলে দেয়া হবে  ৩৫ কোটি বই

 ১১ বছরে বিতরণ করা হয়েছে ৩৩১ কোটি; সরকারের ব্যয় ৯ হাজার কোটি টাকার বেশি; প্রায় শতভাগ শিশুর উপস্থিতি আন্তর্জাতিক পরিম-লেও প্রশংসা কুড়াচ্ছে; ৯৯ শতাংশ বই পৌঁছে গেছে উপজেলা পর্যায়ে


 


জনকণ্ঠ :: আগামী ’২০ শিক্ষাবর্ষে প্রাক-প্রাথমিক ও মাধ্যমিক স্তরের চার কোটি ৩০ লাখ শিক্ষার্থীর জন্য ৩৫ কোটি ৩১ লাখ ৪৪ হাজার কপি বিনামূল্যের পাঠ্যবই প্রস্তুত। উপজেলা শিক্ষা অফিস ও শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে ইতোমধ্যেই পৌঁছে গেছে প্রায় ৯৯ শতাংশ পাঠ্যবই। বছরের প্রথম দিন দেশজুড়ে স্কুলে স্কুলে উৎসবের মধ্য দিয়ে প্রতিটি শিক্ষার্থীর হাতে তুলে দেয়া হবে নতুন ঝকঝকে পাঠ্যবই। শিক্ষার্থীরা উল্লাসে মেতে শামিল হবে উৎসবে। এদিকে সরকারের যুগান্তকারী এ কর্মযজ্ঞের পরিসংখ্যান বলছে, গত ১০ বছরে শিক্ষার্থীদের মাঝে ২৯৬ কোটি পাঠ্যবই বিতরণ করেছে সরকার। আগামী বছরের বইয়ের সংখ্যা যুক্ত করলে এ সংখ্যা হবে ৩৩১ কোটি ৫২ লাখ। যেখানে সরকারের ব্যয় হয়েছে ৯ হাজার কোটি টাকারও বেশি।


সরকার আগামী শিক্ষাবর্ষে শিক্ষার্থীদের মধ্যে বিনামূল্যে বিতরণের জন্য ৩৫ কোটি ৩১ লাখ ৪৪ হাজার ৫৫৪ কপি পাঠ্য বই ছেপেছে। এর মধ্যে প্রাথমিক স্তরের ১০ কোটি ৫৪ লাখ দুই হাজার ৩৭৫ কপি, মাধ্যমিক স্তরের ২৪ কোটি ৭৭ লাখ ৪২ হাজার ১৭৯ কপি। বই বিতরণের সর্বশেষ অবস্থার কথা জানিয়ে জাতীয় শিক্ষাক্রম ও পাঠ্যপুস্তক বোর্ডের (এনসিটিবি) কর্মকর্তারা বলছেন, বরাবরের মতো এবারও কিছু অসাধু মুদ্রাকর নিম্নমানের কাগজে বইছাপার অপচেষ্টা করেছে। নিম্নমানের কাগজ দিয়ে ছাপার কারণে হাতেনাতে ধরাও পড়েছেন বহু অসাধু ব্যবসায়ী। এনসিটিবি ও মান যাচাইকারী প্রতিষ্ঠানের হাতে ধরা পড়েছে অন্তত ১৮ প্রতিষ্ঠান। বাতিল করা হয়েছে এসব প্রতিষ্ঠানের প্রায় দুই হাজার মেট্রিক টন কাগজ।


নিম্নমানের ছাপা, মলাট ও ভুলে ভরা ছবিসহ নানা কারণে কেটে ফেলা হয়েছে বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের পড়ার অযোগ্য এক লাখ কপি বই। ৬০ লাখ কপি ছাপা হলেও কাগজ ও ছাপার মান ভাল না হওয়ায় সেগুলো গ্রহণ করা হয়নি। এমনকি শেষ সময়ে পড়ার অযোগ্য বই দেয়ায় শাস্তির মুখে পড়ছে একাধিক প্রতিষ্ঠান। এনসিটিবি বইয়ের মান রক্ষায় কঠোর অবস্থানে জানিয়ে চেয়ারম্যান অধ্যাপক নারায়ণ চন্দ্র সাহা বলেছেন, কিছু সমস্যা থাকলেও আমাদের বইয়ের প্রায় শতভাগই উপজেলায় চলে গেছে। ইতোমধ্যেই প্রায় ৯৯ শতাংশ বই পৌঁছে গেছে। এ সপ্তাহেই শতভাগ বই উপজেলা ও শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে পৌঁছে যাবে। শিক্ষামন্ত্রী ডাঃ দীপু মনি ও উপমন্ত্রী ব্যারিস্টার মহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেলের সার্বক্ষণিক সহযোগিতায় সফল এ বিশাল কর্মযজ্ঞ শেষ করা যাচ্ছে বলে জানান এনসিটিবি কর্মকর্তারা।


কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, সব চাপের উর্ধে উঠে কাজ করার জন্য সব সময় সাহস যুগিয়েছেন মন্ত্রী ও উপমন্ত্রী। তবে এক্ষেত্রে অসাধু ব্যবসায়ীদের তৎপরতা রোধ করে নির্ভয়ে কাজ করা ছাড়াও শিক্ষার্থীদের জন্য মানসম্পন্ন কারিকুলাম তৈরিতে সর্বক্ষণিক সহযোগিতার জন্য শিক্ষা উপমন্ত্রী ব্যারিস্টার মহিবুল হাসান চৌধুরীকে ধন্যবাদও দেন তারা।


নারায়ণ চন্দ্র সাহা বলেন, তিনি নিয়মিত পাঠ্যপুস্তক মুদ্রণ ও বিতরণ কাজ তদারকি করছেন। এমনকি পাঠ্যবই ও কারিকুলামের সমস্যা নিয়েও তিনি নিজে কাজ করছেন। কিভাবে কারিকুলামসহ বইয়ের মান উন্নত করা যায় তা নিয়ে পরামর্শও দেন উপমন্ত্রী। মাধ্যমিকের গণিতসহ বিজ্ঞান ও অন্য বিভাগের কিছু বইয়ে থাকা কনটেন্টগুলোর সমস্যা শিক্ষার্থীরা কিভাবে সমাধান করতে পারে তার উপায় খুঁজতেও পরামর্শ দিয়েছেন উপমন্ত্রী। বইয়ের জটিল সব বিষয়ে শিক্ষামন্ত্রী ও উপমন্ত্রীর সব ধরনের সহযোগিতা শিক্ষার্থীদের জন্য মানসম্পন্ন বই নিশ্চিতে সবচেয়ে বেশি সহায়তা করছে বলে বলছেন এনসিটিবির কর্মকর্তারা।


এবার দরপত্রের শর্তানুযায়ী গত ১৫ নবেম্বরের মধ্যে সব বই ছাপার কাজ শেষ হওয়ার কথা ছিল। কিন্তু পনেরো/বিশটি ছাপাখানা প্রতিষ্ঠান নির্ধারিত সময়ে বই দিতে পারেনি। কেউ কেউ পাঠ্যপুস্তকে নিম্নমানের কাগজ, কালি ও অন্যান্য উপকরণও ব্যবহার করেছে। মুদ্রণশিল্প সমিতির এক শীর্ষ নেতার প্রতিষ্ঠানে নিম্নমানের কাগজে ছাপা হওয়া প্রায় ৩০ লাখ কপি বই গ্রহণ করতে এনসিটিবির ওপর ব্যাপক চাপ সৃষ্টি করছেন। অপর একটি প্রতিষ্ঠানের কাছেও ৩০ লাখ কপি বই আটকে রয়েছে। এখন পর্যন্ত প্রাথমিক শিক্ষা স্তরের প্রায় ৫৫ লাখ এবং মাধ্যমিক স্তরের প্রায় ২৩ লাখ কপি বই ছাপা বাকি রয়েছে।


এনসিটিবির সদস্য (টেক্সট) অধ্যাপক ফরহাদুল ইসলাম  বলেন, যারা নির্ধারিত সময়ে বই দিতে পারেনি তাদের ওই লটের বইয়ের মোট টাকার (মূল্য) ওপর ১০ শতাংশ পর্যন্ত জরিমানা দিতে হবে। কেউ মাফ পাবে না। আর নিম্নমানের একটি বইও এনসিটিবি গ্রহণ করবে না। বইয়ের মানের ক্ষেত্রে কারও সঙ্গে আপোসও করা হচ্ছে না।


একই কথা বললেন বিতরণ নিয়ন্ত্রক অধ্যাপক জিয়াউল হকও। তিনি বলেছেন, আমরা কাজের প্রতিটি পর্যায়ে মন্ত্রণালয়ের সহযোগিতা পেয়েছি। মন্ত্রী ও উপমন্ত্রীর সর্বক্ষণিক সমর্থন ছিল বলেই আমরা সব বাধা কাটিয়ে কাজ করতে পেরেছি। তিনি আরও বলেন, প্রাথমিক স্তরের শিক্ষার্থীদের মধ্যে ১০ কোটি ৫৪ লাখ দুই হাজার ৩৭৫ ও মাধ্যমিক স্তরের শিক্ষার্থীদের মধ্যে ২৪ কোটি ৭৭ লাখ ৪২ হাজার ১৭৯ কপি বই বিনামূল্যে বিতরণ করা হবে। ইতোমধ্যেই প্রায় ৯৯ শতাংশ বই উপজেলায় চলে গেছে। বাকি বই এ সপ্তাহেই চলে যাবে।


এনসিটিবি চেয়ারম্যান অধ্যাপক নারায়ণ চন্দ্র সাহা বলছিলেন, বইয়ের প্রায় ৯৯ শতাংশই উপজেলা ও শিক্ষা প্রতিষ্ঠান পর্যায়ে চলে গেছে। বছরের প্রথম দিন বিতরণ করা হবে বই। বিতরণ পরিস্থিতি খুবই ভাল। চেয়ারম্যান প্রতিকূলতা কাটিয়ে সফলতার সঙ্গে কাজ করতে সহযোগিতার জন্য মন্ত্রী ও উপমন্ত্রীকে ধন্যবাদ জানিয়ে বলেন, মন্ত্রী ও উপমন্ত্রী মহোদয় আমাদের সার্বক্ষণিক সহযোগিতা করেছেন, মনিটরিং করেছেন বলেও বাধা কাটিয়ে কাজ করা সম্ভব হয়েছে। কারিকুলাম ও বইয়ের মানোন্নয়নের বিষয়ে উপমন্ত্রীর চিন্তাভাবনা ও সহযোগিতার কথা উল্লেখ করে তিনি বলেন, কারিকুলাম, টেক্সটের মানোন্নয়নের বিষয়ে মাননীয় উপমন্ত্রীর চিন্তাভাবনা আমাদের কাজকে এগিয়ে নিতে বিশেষভাবে সহায়তা করছে।


এবার বই ছাপা ও বিতরণের শেষ পর্যায়ে এসে নানা প্রতিকূল পরিস্থিতির মুখে পড়তে হয়েছিল এনসিটিবিকে। বই বিতরণ কাজের মধ্যেই অসাধু ব্যবসায়ীদের তৎপরতা সামাল দিতে ব্যস্ত থাকতে হয়েছে এনসিটিবিকে। মান মূল্যায়নের কাজ পাওয়া প্রতিষ্ঠান ব্যুরো ভার্টিটাস বাংলাদেশ (প্রাইভেট) লিমিটেড ও কন্টিনেন্টাল ইনস্পেকশন বিডি লিমিটেডকে সামাল দিতে হয়েছে অসাধু ব্যবসায়ীদের মূল কর্মকা-।


অভিযোগ পাওয়া গেছে, আন্তর্জাতিক দরপত্রে বিদেশী প্রতিষ্ঠান ঠেকাতে এবার প্রাক্কলিত দরের চেয়ে কমমূল্যে প্রাথমিক স্তরের সব বই ছাপার কাজ নিয়েছিল দেশী কিছু মুদ্রাকর (প্রিন্টার্স)। অনেক প্রতিষ্ঠানই কমদামে কেনা নিম্নমানের কাগজে বই ছেপে লাভ পুষিয়ে নেয়ার চেষ্টা করে।


শর্ত লঙ্ঘন করে নিম্নমানের কাগজে পাঠ্যবই মুদ্রণের চেষ্টা করেছে অসাধু প্রিন্টার্সরা (ছাপাখানার মালিক)। অধ্যাপক ফরহাদুল ইসলাম জানান, নিম্নমানের কাগজে মাধ্যমিক স্তরের পাঠ্যবই ছাপার উদ্যোগ নেয়ায় ১৮ ছাপাখানার এক হাজার ৭৬১ মেট্রিক টন কাগজ বাতিল করে শর্ত অনুযায়ী পুনরায় কাগজ কিনে বই ছাপতে বাধ্য করেছে এনসিটিবি।


প্রাথমিক স্তরেও নিম্নমানের কাগজ সরবরাহ করায় কয়েকটি কাগজ উৎপাদনকারী প্রতিষ্ঠানের প্রায় ১১শ’ মেট্রিক টন কাগজ ছাপার অযোগ্য ঘোষণা করেছে সংস্থাটি। এছাড়া এনসিটিবি’র শর্তের তোয়াক্কা না করে বই ছাপায় সাতটি ছাপাখানার প্রায় এক লাখ কপি বই কেটে দিয়েছেন।


নিম্নমানের কাগজে বই ছাপাসহ নানা অনিয়মের কারণে সাতটি ছাপাখানার প্রায় এক লাখ কপি বই ধ্বংস করে দিয়েছে এনসিটিবি পরিদর্শকরা। এসব প্রতিষ্ঠানের মধ্যে হুমায়রা প্রিন্টার্সের ৩৮০ কপি, লেটার এ্যান্ড কালার প্রিন্টিং প্রেসের চার হাজার পাঁচ শ’ কপি, বুকম্যান প্রিন্টিং প্রেসের তিন হাজার ৫০ কপি, ভাই ভাই প্রিন্টিং প্রেসের ২৬ হাজার ৯২০ কপি, নুরুল ইসলাম প্রিন্টিং প্রেসের ৫০ হাজার কপি ও শ্রাবণী প্রিন্টার্সের পাঁচ শ’ কপি বই ধ্বংস করা হয়েছে। এছাড়া রেজা প্রিন্টার্সের তিনটি পাঠ্যপুস্তকের ফর্মা নষ্ট করা হয়েছে।


জানা গেছে, মাধ্যমিক স্তরের বই ছাপতে নিম্নমানের কাগজ কেনায় ১৮ প্রতিষ্ঠানের কাগজ ছাপার অযোগ্য ঘোষণা ও বাতিল করেছে এনসিটিবি। ওসব প্রতিষ্ঠানকে শর্ত অনুযায়ী কাগজ কিনে বই ছাপতে বাধ্য করেছে সংস্থাটি। এর মধ্যে অনুপম প্রিন্টার্সের ৮০ টন।


আরো আছে ফাহিম প্রিন্টিং এ্যান্ড পাবলিকেশন্সের ১২, ফাইভ স্টার প্রিন্টিং এ্যান্ড পাবলিকেশন্সের ৫০, নাহার প্রিন্টার্সের ২৬, নিউ সুজন আর্ট প্রেসের ৭২, কাশেম এ্যান্ড রহমান প্রিন্টিং প্রেসের ৩০, কোহিনূর আর্ট প্রেসের ২৫, সৃষ্টি প্রিন্টার্সের ১৫, পেপার প্রসেসিং এ্যান্ড প্যাকেজিংয়ের ২৫, কমলা প্রিন্টার্সের ৭৩, ইন্টারনেট ওয়েব প্রিন্টার্সের ৪০, হক প্রিন্টার্সের ৩০, সিটি সানজানা আর আর রূপালীর ৫০, নাজমুন নাহার প্রেসের ১৩, করতোয়া প্রিন্টার্সের ২০ এবং আনমল নিউ অফসেট প্রেসের ১০ মেট্রিক টন কাগজ বাতিল করা হয়েছে। এসব কাগজ ৬০ জিএসএমের কম ছিল ঔজ্জ্বল্যও কম ছিল।


এদিকে কোটি কোটি শিক্ষার্থীর জন্য বই বিতরণের যে কর্মযজ্ঞ নিয়ে বছরের পর বছর ধরে আলোচনা চলছে তার পরিসংখ্যান বলছে, গত ১০ বছরে শিক্ষার্থীদের মাঝে ২৯৬ কোটি আট লাখ বিনামূল্যের পাঠ্যবই বিতরণ করেছে সরকার। আগামী বছরের জন্য প্রস্তুত করা বইয়ের সংখ্যা যোগ করলে মোট পাঠ্যবই দাঁড়ায় ১১ বছরে ৩৩১ কোটি ৫২ লাখ কপি। যে কাজে সরকারের ব্যয় হয়েছে নয় হাজার কোটি টাকারও বেশি। এর মধ্যে আগামী বছরের জন্য প্রস্তুত করা বইয়ে সরকারের ব্যয় হচ্ছে এক হাজার ১১ কোটি টাকারও বেশি।


সরকারের এ বিশাল কর্মযজ্ঞের তথ্য দেখলেই স্পষ্ট হয় প্রায় প্রতিবছরই বেড়েছে বিনামূল্যের বইয়ের সংখ্যা। বেড়েছে শিক্ষার্থী বিশেষ করে বিদ্যালয়ে আসা শিক্ষার্থীদের সংখ্যা। শিক্ষাবিদসহ বিশেষজ্ঞরা বলছেন, বিনামূল্যের পাঠ্যবই শিক্ষার্থীদের বিদ্যালয়ে ফিরিয়ে এনেছে, যা দেশের পুরো শিক্ষা ব্যবস্থায় প্রভাব ফেলেছে। তথ্য বলছে, গত ১১ বছর আগে দেশে বিদ্যালয়ে আসা শিশুদের হার ছিল ৮০ শতাংশের একটু বেশি। কিন্তু ১০ বছরের মাথায় এখন প্রায় শতভাগ শিশু স্কুলে আসছে। বিষয়টি ইতোমধ্যেই নজর কেড়েছে আন্তর্জাতিক মহলে। স্কুলে শতভাগ শিশুর উপস্থিতিকে বাংলাদেশের একটি বড় অর্জন বলেও উল্লেখ করা হচ্ছে।


শতভাগ বিনামূল্যের পাঠ্যবইয়ের প্রথম বছর বইয়ের সংখ্যা ছিল ’১০ সালে ১৯ কোটি ৯০ লাখ ৯৬ হাজার ৫৬১ কপি, ২০১১ সালে ২৩ কোটি ২২ লাখ ২১ হাজার ২৩৪ কপি, ’১২ সালে ২২ কোটি ১৩ লাখ ৬৬ হাজার ৩৮৩ কপি, ’১৩ সালে ২৬ কোটি ১৮ লাখ ৯ হাজার ১০৬ কপি, ’১৪ সালে ৩১ কোটি ৭৭ লাখ ২৫ হাজার ৫২৬ কপি, ২০১৫ সালে ৩২ কোটি ৬৩ লাখ ৪৭ হাজার ৯২৩ কপি, ’১৬ সালে ৩৩ কোটি ৩৭ লাখ ৬২ হাজার ৭৭২ কপি, ২০১৭ সালে বই ছিল ৩৬ কোটি ২১, লাখ ৮২ হাজার ২৪৫ কপি ’১৮ সালে বইয়ের সংখ্যা ছিল ৩৫ কোটি ৪২ লাখ ৯০ হাজার ১৬২ কপি। এ বছর ৩৫ কোটি ২১ লাখ ৯৭ হাজার ৮৮২ কপি। আর আগামী বছরের জন্য বই লাগবে ৩৫ কোটি ৩১ লাখ ৪৪ হাজার কপি।


বাধ্যতামূলক প্রাথমিক শিক্ষা বাস্তবায়নের লক্ষ্যে সরকার ১৯৮৩ সাল থেকে ছাত্রছাত্রীদের মাঝে বিনামূল্যের কিছু পাঠ্যবই বিতরণ শুরু করে। ২০০৯ সাল পর্যন্ত নির্ধারিত কয়েকটি ক্যাটাগরির কেবল প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ছাত্রছাত্রীদের অর্ধেক নতুন ও অর্ধেক পুরনো পাঠ্যবই বিনামূল্যে দেয়া হতো। এসব বইও সময়মতো শিক্ষার্থীরা পেত না।


বই পেতে পেতে মার্চ/এপ্রিল পার হয়ে যেত। এতে ক্লাস শুরুতে অনেক দেরি হতো। প্রতিবারই অসাধু প্রেস মালিকদের সিন্ডিকেটের কবলে পড়ত পাঠ্যবই ছাপার কাজ। সময়মতো বই না পাওয়ায় এবং উচ্চদরে বাজার থেকে বই কিনতে না পেরে প্রতিবছর ব্যাপকসংখ্যক ছাত্রছাত্রী প্রাথমিক ও মাধ্যমিক স্তর থেকে ঝরে পড়ত। হাতেগোনা কয়েকটি দেশ বাদ দিলে পৃথিবীর অধিকাংশ দেশেই মোট জন্যসংখ্যাও চার কোটি নেই। সেখানে বছরের প্রথম দিনই দেশের প্রাথমিক ও মাধ্যমিক স্তরের চার কোটিরও বেশি শিক্ষার্থীর হাতে ৩০ থেকে ৩৫ কোটি বই তুলে দিচ্ছে বাংলাদেশ।

More News

আতংক কমে যাওয়া, দ্বীতিয়বার পরীক্ষা না করা এবং ফিঃ নির্ধারণে নমুনা সংগ্রহ কমে যেতে পারে - স্বাস্থ্য অধিদপ্তর আতংক কমে যাওয়া, দ্বীতিয়বার পরীক্ষা না করা এবং ফিঃ নির্ধারণে নমুনা সংগ্রহ কমে যেতে পারে - স্বাস্থ্য অধিদপ্তর

দেশে ল্যাবের সংখ্যা বাড়লেও  নমুনা সংগ্রহের পাশাপাশি কমেছে পরীক্ষার সংখ্যা। বেড়েছে করোনা শনাক্তের শতকরা হার । জুলাই এর প্রথম থেকে নমুনা সংগ্রহ ও পরীক্ষার সংখ্যা কমতে কমতে ১১/১২ হাজার এ দাড়িয়েছে। অথচ জুনের শেষে গড়ে প্রায় ১৭/১৮ হাজার করে........ বিস্তারিত

৩ দিনই থাকছে ইদের ছুটি, সরকারি কর্মচারিদের কর্মস্থল ত্যাগে মানা ৩ দিনই থাকছে ইদের ছুটি, সরকারি কর্মচারিদের কর্মস্থল ত্যাগে মানা

ঈদুল আজহার ছুটির সময় সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারিদের কর্মস্থলে থাকতে হবে। তাঁরা কর্মস্থল ত্যাগ করতে পারবেন না।
প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে আজ সকালে অনুষ্ঠিত মন্ত্রিসভার নিয়মিত বৈঠকে এই সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়। প্রধানমন্ত্রী &#........ বিস্তারিত

১৩ জুলাই : দেশে আজ শনাক্ত ৩০৯৯ , মৃত ৩৯ ১৩ জুলাই : দেশে আজ শনাক্ত ৩০৯৯ , মৃত ৩৯

গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে ১২ হাজার ৪২৩ টি নমুনা পরীক্ষা করে আরও ৩ হাজার ০৯৯ জনের দেহে করোনা ভাইরাসের উপস্থিতি পাওয়া গিয়েছে। এসময়ে মারা গেলেন আরও ৩৯ জন। এবং সুস্থ হয়েছেন আরও ৪ হাজার ৭০৩ জন। এ নিয়ে দেশে মোট কোভিড-১৯ রোগী শনাক্ত হলেন ১ লাখ ৮৬ হাজার ৮৯৪ ........ বিস্তারিত

১২ জুলাই : চট্টগ্রামে শনাক্ত আরও ১০৭ ১২ জুলাই : চট্টগ্রামে শনাক্ত আরও ১০৭

গত ২৪ ঘন্টায় চট্টগ্রামে ৫৯৭ টি নমুনা পরীক্ষা করে নতুন করে আরও ১০৭ জনের শরীরে করোনা ভাইরাস শনাক্ত হয়েছে। শনাক্তের মধ্যে চট্টগ্রাম নগরে ৮০ জন এবং এর বিভিন্ন উপজেলায় ২৭ জন।  গতকাল কেউ মারা যান নি বরং সুস্থ হয়েছেন আরও ১৫ জন। এ নিয়ে চট্টগ্রাম &#........ বিস্তারিত

১২ জুলাই : দেশে আজ শনাক্ত ২,৬৬৬ , মৃত ৪৭ ১২ জুলাই : দেশে আজ শনাক্ত ২,৬৬৬ , মৃত ৪৭

গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে ১১ হাজার ০৫৯ টি নমুনা পরীক্ষা করে আরও ২ হাজার ৬৬৬ জনের দেহে করোনা ভাইরাসের উপস্থিতি পাওয়া গিয়েছে। এসময়ে মারা গেলেন আরও ৪৭ জন। এবং সুস্থ হয়েছেন আরও ৫ হাজার ৫৮০ জন। এ নিয়ে দেশে মোট কোভিড-১৯ রোগী শনাক্ত হলেন ১ লাখ ৮৩ হাজার ৭৯৫ ........ বিস্তারিত

১১ জুলাই : দেশে আজ শনাক্ত ২,৬৮৬ , মৃত ৩০ ১১ জুলাই : দেশে আজ শনাক্ত ২,৬৮৬ , মৃত ৩০

গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে ১১ হাজার ১৯৩ টি নমুনা পরীক্ষা করে আরও ২ হাজার ৬৮৬ জনের দেহে করোনা ভাইরাসের উপস্থিতি পাওয়া গিয়েছে। এসময়ে মারা গেলেন আরও ৩০ জন। এবং সুস্থ হয়েছেন আরও ১ হাজার ৬২৮ জন। এ নিয়ে দেশে মোট কোভিড-১৯ রোগী শনাক্ত হলেন ১ লাখ ৮১ হাজার ১২৯ ........ বিস্তারিত

১০ জুলাই : দেশে আজ শনাক্ত ২,৯৪৯ , মৃত ৩৭ ১০ জুলাই : দেশে আজ শনাক্ত ২,৯৪৯ , মৃত ৩৭

গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে ১৩ হাজার ৪৯৪ টি নমুনা পরীক্ষা করে আরও ২ হাজার ৯৪৯ জনের দেহে করোনা ভাইরাসের উপস্থিতি পাওয়া গিয়েছে। এসময়ে মারা গেলেন আরও ৩৭ জন। এবং সুস্থ হয়েছেন আরও ১ হাজার ৮৬২ জন। এ নিয়ে দেশে মোট কোভিড-১৯ রোগী শনাক্ত হলেন ১ লাখ ৭৮ হাজার ৪৪৩ ........ বিস্তারিত

সাবেক স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী সাহারা খাতুন আর নেই, রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রীর শোক সাবেক স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী সাহারা খাতুন আর নেই, রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রীর শোক

সাবেক স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য অ্যাডভোকেট সাহারা খাতুন আর নেই। থাইল্যান্ডের বামরুনগ্রাদ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় বৃহস্পতিবার বাংলাদেশ সময় রাত ১১টা ২৫ মিনিটে তিনি মারা যান। ইন্নালিল্লাহি ওয়া ই........ বিস্তারিত

আমরাই চোর ধরছি আর আমাদেরকেই চোর বলা হচ্ছে, এটাই দুর্ভাগ্য: প্রধানমন্ত্রী আমরাই চোর ধরছি আর আমাদেরকেই চোর বলা হচ্ছে, এটাই দুর্ভাগ্য: প্রধানমন্ত্রী

সংসদের বাজেট অধিবেশনের সমাপণী বক্তব্যে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, বর্তমান সরকার দুর্নীতি অনিয়মের বিরুদ্ধে কঠোর অবস্থানে রয়েছে আওয়ামী লীগ সরকার আসার পর........ বিস্তারিত

দুর্নীতিবাজ যেই হোক ব্যবস্থা গ্রহণ অব্যাহত থাকবে : প্রধানমন্ত্রী দুর্নীতিবাজ যেই হোক ব্যবস্থা গ্রহণ অব্যাহত থাকবে : প্রধানমন্ত্রী

প্রধানমন্ত্রী এবং সংসদ নেতা শেখ হাসিনা দুর্নীতির বিরুদ্ধে তাঁর সরকারের কঠোর অবস্থান পুনর্ব্যক্ত করে দল-মত নির্বিশেষে দেশব্যাপী চলমান দুর্নীতি বিরোধী অভিযান অব্যাহত রাখার ঘোষণা দিয়েছেন।
তিনি বলেন, ‘আওয়ামী লীগ সরকারে আসার পর থেকে õ........ বিস্তারিত

০৯ জুলাই : দেশে আজ শনাক্ত ৩৩৬০ , মৃত ৪১ ০৯ জুলাই : দেশে আজ শনাক্ত ৩৩৬০ , মৃত ৪১

গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে ১৫ হাজার ৬৩২ টি নমুনা পরীক্ষা করে আরও ৩ হাজার ৩৬০ জনের দেহে করোনা ভাইরাসের উপস্থিতি পাওয়া গিয়েছে। এসময়ে মারা গেলেন আরও ৪১ জন। এবং সুস্থ হয়েছেন আরও ৩ হাজার ৭০৬ জন। এ নিয়ে দেশে মোট কোভিড-১৯ রোগী শনাক্ত হলেন ১ লাখ ৭৫ হাজার ৪৯৪ ........ বিস্তারিত

অভিবাসীদের ওপর কোভিড-১৯-এর প্রভাব লাঘবে 'জোরালো বৈশ্বিক পদক্ষেপের' আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর অভিবাসীদের ওপর কোভিড-১৯-এর প্রভাব লাঘবে 'জোরালো বৈশ্বিক পদক্ষেপের' আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আজ অভিবাসীদের ওপর করোনাভাইরাস মহামারীর বিরূপ প্রভাব মোকাবেলায় সব দেশের অংশগ্রহণে একটি ‘জোরালো বৈশ্বিক পদক্ষেপের’ আহ্বান জানিয়ে এ লক্ষ্যে তিন দফা পরামর্শ উপস্থাপন করেছেন।
সুইজারল্যান্ডের জেনেভাতে আন্........ বিস্তারিত

ইতিহাস কেউ মুছে ফেলতে পারে না, কোনও না কোনভাবে সেটা সামনে আসবেই : প্রধানমন্ত্রী ইতিহাস কেউ মুছে ফেলতে পারে না, কোনও না কোনভাবে সেটা সামনে আসবেই : প্রধানমন্ত্রী
প্রধানমন্ত্রী এবং সংসদ নেতা শেখ হাসিনা বলেছেন, ‘ইতিহাস কেউ মুছে ফেলতে পারে না, কোনও না কোনভাবে সেটা সামনে আসবেই। আজকে সেই নামটা (বঙ্গবন্ধু) আবারও ফিরে এসেছে।
তিনি বলেন, দেশের সর্বস্তরের মানুষ যাতে সঠিক ইতিহাসটা জানতে পারে সেজন্য তাঁর সর........ বিস্তারিত

০৮ জুলাই : দেশে আজ শনাক্ত ৩৪৮৯ , মৃত ৪৬ ০৮ জুলাই : দেশে আজ শনাক্ত ৩৪৮৯ , মৃত ৪৬

গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে ১৫ হাজার ৬৭২ টি নমুনা পরীক্ষা করে আরও ৩ হাজার ৪৮৯ জনের দেহে করোনা ভাইরাসের উপস্থিতি পাওয়া গিয়েছে। এসময়ে মারা গেলেন আরও ৪৬ জন। এবং সুস্থ হয়েছেন আরও ২ হাজার ৭৩৬ জন। এ নিয়ে দেশে মোট কোভিড-১৯ রোগী শনাক্ত হলেন ১ লাখ ৭২ হাজার ১৩৪ ........ বিস্তারিত

০৭ জুলাই : দেশে আজ শনাক্ত ৩০২৭ , মৃত ৫৫ ০৭ জুলাই : দেশে আজ শনাক্ত ৩০২৭ , মৃত ৫৫

গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে ১৩ হাজার ১৭৩ টি নমুনা পরীক্ষা করে আরও ৩ হাজার ২৭ জনের দেহে করোনা ভাইরাসের উপস্থিতি পাওয়া গিয়েছে। এসময়ে মারা গেলেন আরও ৫৫ জন। এবং সুস্থ হয়েছেন আরও ১ হাজার ৯৫৩ জন। এ নিয়ে দেশে মোট কোভিড-১৯ রোগী শনাক্ত হলেন ১ লাখ ৬৮ হাজার ৬৪৫ জ........ বিস্তারিত

রিজেন্ট হাসপাতালে র্যা বের অভিযান : মনগড়া রিপোর্ট প্রদান ও প্রতারণা করে বিল আদায়, আটক ৮ রিজেন্ট হাসপাতালে র্যা বের অভিযান : মনগড়া রিপোর্ট প্রদান ও প্রতারণা করে বিল আদায়, আটক ৮

স্বাস্থ্য অধিদপ্তর থেকে বিনামূল্যে করোনা টেস্টের অনুমতি নিয়ে প্রায় ১০ হাজার রোগীর কাছ থেকে স্যাম্পল প্রতি ৩-৪ হাজার টাকা আদায় করেছে রাজধানীর রিজেন্ট হাসপাতাল। এমনকি তাদের সংগৃহীত করোনার স্যাম্পলের অর্ধেকের বেশি পরীক্ষা না করেই অন........ বিস্তারিত

একনেকে ৯ প্রকল্প অনুমোদন একনেকে ৯ প্রকল্প অনুমোদন

জাতীয় অর্থনৈতিক পরিষদের নির্বাহী কমিটি (একনেক) পাইপলাইন পদ্ধতিতে তেল উত্তোলন প্রকল্পের দ্বিতীয় সংশোধনীসহ ২ হাজার ৭৪৪ কোটি ৪৪ লাখ টাকা ব্যয়েসম্বলিত ৯টি প্রকল্পের চূড়ান্ত অনুমোদন দিয়েছে। এর মধ্যে সরকারের নিজস্ব অর্থায়ন ১ হাজার ১৫৩ ক........ বিস্তারিত

০৬ জুলাই : দেশে আজ শনাক্ত ৩২০১ , মৃত ৪৪ ০৬ জুলাই : দেশে আজ শনাক্ত ৩২০১ , মৃত ৪৪

গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে ১৪ হাজার ২৪৫ টি নমুনা পরীক্ষা করে আরও ৩ হাজার ২০১ জনের দেহে করোনা ভাইরাসের উপস্থিতি পাওয়া গিয়েছে। এসময়ে মারা গেলেন আরও ৪৪ জন। এবং সুস্থ হয়েছেন আরও ৩ হাজার ৫২৩৪ জন। এ নিয়ে দেশে মোট কোভিড-১৯ রোগী শনাক্ত হলেন ১ লাখ ৬৫ হাজার ৬১........ বিস্তারিত

৫ জুলাই : দেশে আজ শনাক্ত ২৭৩৮ , মৃত ৫৫ ৫ জুলাই : দেশে আজ শনাক্ত ২৭৩৮ , মৃত ৫৫

গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে ১৩ হাজার ৯৮৮ টি নমুনা পরীক্ষা করে আরও ২ হাজার ৭৩৮ জনের দেহে করোনা ভাইরাসের উপস্থিতি পাওয়া গিয়েছে। এসময়ে মারা গেলেন আরও ৫৫ জন। এবং সুস্থ হয়েছেন আরও ১ হাজার ৯০৪ জন। এ নিয়ে দেশে মোট কোভিড-১৯ রোগী শনাক্ত হলেন ১ লাখ ৬২ হাজার ৪১৭ ........ বিস্তারিত

০৪ জুলাই : দেশে আজ শনাক্ত ৩২৮৮ , মৃত ২৯ ০৪ জুলাই : দেশে আজ শনাক্ত ৩২৮৮ , মৃত ২৯

গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে ১৪ হাজার ৭২৭ টি নমুনা পরীক্ষা করে আরও ৩ হাজার ২৮৮ জনের দেহে করোনা ভাইরাসের উপস্থিতি পাওয়া গিয়েছে। এসময়ে মারা গেলেন আরও ২৯ জন। এবং সুস্থ হয়েছেন আরও ২ হাজার ৬৭৩ জন। এ নিয়ে দেশে মোট কোভিড-১৯ রোগী শনাক্ত হলেন ১ লাখ ৫৯ হাজার ৬৭৯ ........ বিস্তারিত

পাটকলগুলোর আধুনিকায়নে উৎপাদন বন্ধ করে শ্রমিকদের এককালীন পাওনা পরিশোধের সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার পাটকলগুলোর আধুনিকায়নে উৎপাদন বন্ধ করে শ্রমিকদের এককালীন পাওনা পরিশোধের সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার

সরকার বিজেএমসি পরিচালিত রাষ্ট্রায়ত্ত পাটকলগুলোর আধুনিকায়ন এবং জাতীয় ও আন্তর্জাতিক পর্যায়ে একে আরো সক্ষম করে গড়ে তুলতে উৎপাদন বন্ধ করে শ্রমিকদের এককালীন পাওনা পরিশোধের সিদ্ধান্ত নিয়েছে।


এজন্য বাংলাদেশ জুট মিলস কর্পোরেশন’র (বি........ বিস্তারিত

প্রধানমন্ত্রীর নেতৃত্বে ডেল্টা কাউন্সিল গঠন প্রধানমন্ত্রীর নেতৃত্বে ডেল্টা কাউন্সিল গঠন

বাংলাদেশ ডেল্টা প্ল্যান-২১০০ বাস্তবায়নের প্রয়োজনীয় পরামর্শ ও দিকনির্দেশনা দিতে প্রধানমন্ত্রীর নেতৃত্বে ‘ডেল্টা কাউন্সিল’ গঠন করা হয়েছে। ১২ সদস্যের এই কাউন্সিল গঠন করে ১ জুলাই প্রজ্ঞাপন জারি করেছে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ। প্রধানমন্&#........ বিস্তারিত

০৩ জুলাই : দেশে আজ শনাক্ত ৩১১৪ , মৃত ৪২ ০৩ জুলাই : দেশে আজ শনাক্ত ৩১১৪ , মৃত ৪২

গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে ১৪ হাজার ৬৫০ টি নমুনা পরীক্ষা করে আরও ৩ হাজার ১১৪ জনের দেহে করোনা ভাইরাসের উপস্থিতি পাওয়া গিয়েছে। এসময়ে মারা গেলেন আরও ৪২ জন। এবং সুস্থ হয়েছেন আরও ১ হাজার ৬০৬ জন। এ নিয়ে দেশে মোট কোভিড-১৯ রোগী শনাক্ত হলেন ১ লাখ ৫৬ হাজার ৩৯১ ........ বিস্তারিত

০২ জুলাই : দেশে আজ শনাক্ত ৪০১৯ , মৃত ৩৮ ০২ জুলাই : দেশে আজ শনাক্ত ৪০১৯ , মৃত ৩৮

গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে ১৮ হাজার ৩৬২ টি নমুনা পরীক্ষা করে আরও ৪ হাজার ০১৯ জনের দেহে করোনা ভাইরাসের উপস্থিতি পাওয়া গিয়েছে। এসময়ে মারা গেলেন আরও ৩৮ জন। এবং সুস্থ হয়েছেন আরও ৪ হাজার ৩৩৪ জন। এ নিয়ে দেশে মোট কোভিড-১৯ রোগী শনাক্ত হলেন ১ লাখ ৫৩ হাজার ২৭৭ ........ বিস্তারিত

০১ জুলাই : দেশে আজ শনাক্ত ৩৭৭৫ , মৃত ৪১ ০১ জুলাই : দেশে আজ শনাক্ত ৩৭৭৫ , মৃত ৪১

গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে ১৭ হাজার ৮৭৫ টি নমুনা পরীক্ষা করে আরও ৩ হাজার ৭৭৫ জনের দেহে করোনা ভাইরাসের উপস্থিতি পাওয়া গিয়েছে। এসময়ে মারা গেলেন আরও ৪১ জন। এবং সুস্থ হয়েছেন আরও ২ হাজার ৪৮৪ জন। এ নিয়ে দেশে মোট কোভিড-১৯ রোগী শনাক্ত হলেন ১ লাখ ৪৯ হাজার ২৫৮ ........ বিস্তারিত

৩ আগস্ট পর্যন্ত স্বাস্থ্যবীধি মেনে সীমিত পরিসরে অফিস ও গণপরিবহন চলবে ৩ আগস্ট পর্যন্ত স্বাস্থ্যবীধি মেনে সীমিত পরিসরে অফিস ও গণপরিবহন চলবে

করোনা সংক্রমণ রোধে সীমিত পরিসরে যেভাবে অফিস চলছে, তা আগামী ৩ অগাস্ট পর্যন্ত বাড়িয়েছে সরকার। আজ মঙ্গলবার রাতে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয় এ সংক্রান্ত প্রজ্ঞাপন জারি করেছে।
এতে উল্লেখ করা হয়, করোন ভাইরাসের বিস্তার বোধে এবং পরিস্থিতি উন্নয়ন........ বিস্তারিত

সংসদে ২০২০ - ২১ অর্থবছরের বাজেট পাস সংসদে ২০২০ - ২১ অর্থবছরের বাজেট পাস

বৈশ্বিক মহামারি করোনার (কোভিড-১৯) প্রেক্ষাপটে সৃষ্ট অর্থনৈতিক অভিঘাত সফলভাবে মোকাবলা করে চলমান উন্নয়ন অব্যাহত এবং উচ্চতর প্রবৃদ্ধি অর্জনের লক্ষ্য নিয়ে ২০২০-২১ অর্থবছরের জন্য ৫ লাখ ৬৮ হাজার কোটি টাকার জাতীয় বাজেট আজ সংসদে পাস হয়েছে।
&........ বিস্তারিত

৩০ জুন : দেশে আজ শনাক্ত ৩৬৮২ , মৃত ৬৪ ৩০ জুন : দেশে আজ শনাক্ত ৩৬৮২ , মৃত ৬৪

গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে ১৮ হাজার ৪২৬ টি নমুনা পরীক্ষা করে আরও ৩ হাজার ৬৮২ জনের দেহে করোনা ভাইরাসের উপস্থিতি পাওয়া গিয়েছে। এসময়ে মারা গেলেন আরও ৬৪ জন। এবং সুস্থ হয়েছেন আরও ১ হাজার ৮৪৪ জন। এ নিয়ে দেশে মোট কোভিড-১৯ রোগী শনাক্ত হলেন ১ লাখ ৪৫ হাজার ৪৮৩ ........ বিস্তারিত

২৯ জুন : চট্টগ্রামে আজ শনাক্ত আরও ৪৪৫ ২৯ জুন : চট্টগ্রামে আজ শনাক্ত আরও ৪৪৫

গত ২৪ ঘন্টায় চট্টগ্রামে ১৫৯৪ টি নমুনা পরীক্ষা করে নতুন করে আরও ৪৪৫ জনের শরীরে করোনা ভাইরাস শনাক্ত হয়েছে।  মারা গিয়েছেন আরও ২ জন, এবং সুস্থ হয়েছেন আরও ৫৯ জন। এ নিয়ে চট্টগ্রাম নগর ও এর উপজেলাগুলোতে আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়ালো ৮ হাজার ৪৭২ জনে........ বিস্তারিত

'গেদু চাচা' খ্যাত খোন্দকার মোজাম্মেল হক  আর নেই 'গেদু চাচা' খ্যাত খোন্দকার মোজাম্মেল হক আর নেই

মুক্তিযোদ্ধা ও আজকের সূর্যোদয়ের প্রধান সম্পাদক, গেদু চাচা খ্যাত সাংবাদিক  খোন্দকার মোজাম্মেল হক আর নেই। ইন্নালিল্লাহি ওয়াইন্নইলাহি রাজিউন। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৭০ বছর।


সোমবার, ২৯ জুন বিকেল ৪টায় রাজধানীর একটি বেসরকারি হা&........ বিস্তারিত

করোনা পরীক্ষার ফিঃ ২০০ টাকা , বাসায় ৫০০ করোনা পরীক্ষার ফিঃ ২০০ টাকা , বাসায় ৫০০

সরকারিভাবে এখন থেকে করোনা পরীক্ষা আর বিনামূল্যে করা যাবে না। এ জন্য নির্ধারণ করা হয়েছে পরীক্ষার ফি।


সোমবার এ বিষয়ে পরিপত্র জারি করেছে স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের স্বাস্থ্য সেবা বিভাগ।


এখন থেকে বুথে গিয়ে নমুনা দিয়ে পর&#........ বিস্তারিত

করোনা ভাইরাসের কারণে বৈশ্বিক অর্থনীতি মহামন্দার দ্বারপ্রান্তে - প্রধানমন্ত্রী করোনা ভাইরাসের কারণে বৈশ্বিক অর্থনীতি মহামন্দার দ্বারপ্রান্তে - প্রধানমন্ত্রী

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, করোনা মহামারির কারণে বৈশ্বিক অর্থনীতি মহামন্দার দ্বারপ্রান্তে। জাতি একটি ক্রান্তিলগ্নের মধ্য দিয়ে যাচ্ছে। এটা শুধু বাংলাদেশ নয়, সারাবিশ্বব্যাপী এই সমস্যা। তবে দেশের সব ধরনের মানুষ যাতে উপকৃত হয় এö........ বিস্তারিত

বুড়িগঙ্গায় লঞ্চডুবি ,৩০ জনের মরদেহ উদ্ধার বুড়িগঙ্গায় লঞ্চডুবি ,৩০ জনের মরদেহ উদ্ধার

রাজধানীর শ্যামবাজার এলাকা সংলগ্ন বুড়িগঙ্গা নদীতে অর্ধশতাধিক যাত্রী নিয়ে লঞ্চডুবির দক্ষতাভিত্তিক কারিগরি শিক্ষায় শিক্ষার্থীদের আগ্রহ কম কারণে সরকার স&#........ বিস্তারিত

২৫ জুন : দেশে আজ শনাক্ত ৩৯৪৬ , মৃত ৩৯ ২৫ জুন : দেশে আজ শনাক্ত ৩৯৪৬ , মৃত ৩৯

গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে ১৭ হাজার ৯৯৯ টি নমুনা পরীক্ষা করে আরও ৩ হাজার ৯৪৬ জনের দেহে করোনা ভাইরাসের উপস্থিতি পাওয়া গিয়েছে। এসময়ে মারা গেলেন আরও ৩৯ জন। এবং সুস্থ হয়েছেন আরও ১ হাজার ৮২৯ জন। এ নিয়ে দেশে মোট কোভিড-১৯ রোগী শনাক্ত হলেন ১ লাখ ২৬ হাজার ৬০৬ ........ বিস্তারিত

করোনাকালে নতুন করে দরিদ্র দেড় কোটিরও বেশি মানুষ করোনাকালে নতুন করে দরিদ্র দেড় কোটিরও বেশি মানুষ

করোনার প্রাদুর্ভাব মোকাবিলায় দেশে দীর্ঘ মেয়াদে ছুটি এবং লকডাউনের ফলে সাধারণ মানুষের আয় ব্যাপকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। ক্ষতির এ মাত্রা যদি মধ্যম মানের ধরা হয় সেক্ষেত্রে দেশে নতুন করে দারিদ্র্যসীমার নিচে চলে এসেছে ১ কোটি ৬০ লাখ মানুষ........ বিস্তারিত

২৪ জুন : দেশে আজ শনাক্ত ৩৪৬২, মৃত ৩৭ ২৪ জুন : দেশে আজ শনাক্ত ৩৪৬২, মৃত ৩৭

গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে ১৬ হাজার ২৯২ টি নমুনা পরীক্ষা করে আরও ৩ হাজার ৪৬২ জনের দেহে করোনা ভাইরাসের উপস্থিতি পাওয়া গিয়েছে। এসময়ে মারা গেলেন আরও ৩৭ জন। এবং সুস্থ হয়েছেন আরও ২ হাজার ০৩১ জন। এ নিয়ে দেশে মোট কোভিড-১৯ রোগী শনাক্ত হলেন ১ লাখ ২২ হাজার ৬৬৪ ........ বিস্তারিত

২৩ জুন : দেশে আজ শনাক্ত ৩৪১২ , মৃত ৪৩ ২৩ জুন : দেশে আজ শনাক্ত ৩৪১২ , মৃত ৪৩

গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে ১৬ হাজার ২৯২ টি নমুনা পরীক্ষা করে আরও ৩ হাজার ৪১২ জনের দেহে করোনা ভাইরাসের উপস্থিতি পাওয়া গিয়েছে। এসময়ে মারা গেলেন আরও ৪৩ জন। এবং সুস্থ হয়েছেন আরও ৮৮০ জন। এ নিয়ে দেশে মোট কোভিড-১৯ রোগী শনাক্ত হলেন ১ লাখ ১৯ হাজার ১৯৮ জন। মার........ বিস্তারিত

২২ জুন : দেশে আজ শনাক্ত ৩৪৮০ , মৃত ৩৮ ২২ জুন : দেশে আজ শনাক্ত ৩৪৮০ , মৃত ৩৮

গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে ১৫ হাজার ৫৫৫ টি নমুনা পরীক্ষা করে আরও ৩ হাজার ৪৮০ জনের দেহে করোনা ভাইরাসের উপস্থিতি পাওয়া গিয়েছে। এসময়ে মারা গেলেন আরও ৩৮ জন। এবং সুস্থ হয়েছেন আরও ১ হাজার ৬৭৮ জন। এ নিয়ে দেশে মোট কোভিড-১৯ রোগী শনাক্ত হলেন ১ লাখ ১৫ হাজার ৭৮৬ ........ বিস্তারিত